Breaking News

কাশ্মীর ন্যায়বিচার না পেলে পণ্ডিত হত্যা বন্ধ হবে না: ফারুক আবদুল্লাহ

অমিত শাহ আশ্বাস দিলেও অধিকৃত কাশ্মীর ‘টার্গেটেড কিলিং’ বন্ধ হচ্ছে না। শনিবার সোপিয়ানে নিজের বাড়ির সামনে গুলিবিদ্ধ হন পুরান কিষাণ ভাট নামের এক কাশ্মীরি পণ্ডিত। এই অবস্থায় উপত্যকার প্রবীণ নেতা জম্মু ও কাশ্মীর ন্যাশানাল কনফারেন্সের প্রধান ফারুক আবদুল্লার বিস্ফোরক মন্তব্য, কাশ্মীরের মানুষের সঙ্গে ন্যায়বিচার না হলে জম্মু-কাশ্মীরে ‘টার্গেটেড কিলিং’ বন্ধ হবে না। ‘টার্গেটেড কিলিং’-এর স্বীকার হচ্ছে মূলত কাশ্মীরি পণ্ডিতরা। তার আরও দাবি, পাকিস্তানের সঙ্গে আলোচনার দরজা বন্ধ রেখে উপত্যকায় শান্তি ফেরানো কঠিন।

এদিন ফারুক বলেন, “ন্যায় বিচার না হলে অশান্তি থামবে না। অতীতে ওরা (বিজেপি ও গেরুয়া সরকার) দাবি করত, সংবিধানের ৩৭০ ধারার কারণে উপত্যকায় সন্ত্রাস থামানো যাচ্ছে না। সেই ধারা এখন বাতিল হয়েছে। হত্যা ও রক্তপাত কি বন্ধ হয়েছে? কেন থামছে না সন্ত্রাস? এর জন্য কে দায়ী?” এইসঙ্গে প্রবীণ নেতা দাবি করলেন, পাকিস্তানের সঙ্গে আলোচনার দরজা বন্ধ রেখে জম্মু ও কাশ্মীরে শান্তি ফেরানো সম্ভব নয়। প্রধানমন্ত্রী মোদির বিরুদ্ধে দ্বিচারিতার অভিযোগ আনেন ফারুক। তার কথায়, মোদি রাশিয়া ও ইউক্রেনের রাষ্ট্রপ্রধানদের যুদ্ধ থামিয়ে আলোচনায় বসতে বলছেন। অথচ জম্মু-কাশ্মীরে শান্তি প্রতিষ্ঠার জন্য পাকিস্তানের সঙ্গে আলোচনায় বসছেন না।

উল্লেখ্য, শনিবার কাশ্মীর পণ্ডিতের উপর হামলার দায় স্বীকার করেছে কাশ্মীর ফ্রিডম ফাইটার্স নামে এক স্বাধীনতাকামী গোষ্ঠী। এই ঘটনায় বিশদ তদন্ত করা হবে বলে জানিয়েছেন কাশ্মীরের ডিআইজি সুজিত কুমার। স্থানীয় কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে কর্তব্যে গাফিলতির অভিযোগে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি।

কাশ্মীর পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, শনিবার সকালে সোপিয়ানে নিজের বাড়ির সামনে গুলিবিদ্ধ হন কিষাণ ভাট। আরও জানা গিয়েছে, ওই কাশ্মীরি পণ্ডিতকে সুরক্ষা দেওয়ার জন্য একজন গার্ডকে মোতায়েন করা হয়েছিল। ঘটনার কিছুক্ষণ আগেই স্কুটারে চেপে ঘুরে এসেছিল ওই গার্ড। তবে তার সঙ্গে ছিল আরও এক ব্যক্তি। ঘটনায় প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, একজন ব্যক্তিই কিষাণকে লক্ষ্য করে গুলি চালায়। সূত্র: ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।

About admin

Check Also

বিশ্বজুড়ে টুইটারে সমস্যা, লগ ইন করতে পারছেন না হাজার-হাজার ইউজার

আচমকা সমস্যায় টুইটার ব্যবহারকারীরা। অভিযোগ, টুইটারে লগ ইন করতে পারছেন না বহু ব্যবহারকারী। তবে কেন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *