এবার পুলিশের মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নিয়েছে ভারতীয় মাদক ব্যবসায়ীরা

কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী সীমান্তে মাদক বিক্রির টাকা নেয়াকে কেন্দ্র করে ভারতীয় মাদক ব্যবসায়ীর হাতে পুলিশসহ তিন যুবক আহত হয়েছে । ধস্তাধস্তির সময় পুলিশ ওই বাংলাদেশিকে উদ্ধার করলেও পুলিশের ব্যবহৃত মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নিয়েছে ভারতীয় মাদক ব্যবসায়ী। এ ঘটনাটি ঘটেছে ফুলবাড়ী সদর ইউনিয়নের নাখারজান সীমান্তের নোম্যান্স ল্যান্ডে। তবে এক ঘন্টা পর খোয়া যাওয়া মোবাইল ফোন ও চশমা উদ্ধার করেছে বিজিবি।ওই সীমান্তের গোলাম রব্বানী ও আব্দুস ছালাম জানান শুক্রবার বিকাল ৫টার সময় শিমুলবাড়ী ইউনিয়নের জহুরটল এলাকার জোবেদ আলীর ছেলে সুকু আলীর মাদক সেবন করার জন্য ৯৪১ নং মেইল পিলারের ৩নং সাব পিলারে যায়।

এ সময় কাঁটাতারের বাহিরে ভারতের দিনহাটা থানার শেইটি টু-শুকারের কুটি গ্রামের বসবাসকারী মাদক বিক্রিতা সহিদুল ইসলাম (৪৫)রশিদুল ইসলাম (৪০)এর কাছে ফেনসডিল কেনার জন্য সুকু আলী নীলকুমর নদীর তীরে নোম্যান্স ল্যান্ডে যায়। মাদকের টাকা দেয়ার সময় তাদের মাঝে বিবাদ সৃষ্টি হয় । এক পর্যায় সুকু আলীকে আটক করে ধস্তাধস্তির হয় উভযের মাঝে। এমন সময় ফুলবাড়ী থানার উপ-পরিদর্শক (দারোগা)পলাশসহ কনস্টবল (সিপাহী) শুকুমার মামলা তদন্ত করে সাদা পোষাক অবস্থায় ওই পথে আসার সময় মারামারির দৃশ্য দেখে এগিয়ে যায়।ভারতীয় নাগরিকদের আর্তচিৎকারে নারী পুরুষ জড়ো হয়ে ঘটনাস্থলে দ্রুত ছুটে আসে। বাংলাদেশি নাগরিকরাও সেখানে উপস্থিত হন। উভয়পক্ষের ধস্তাধস্তিতে ফুলবাড়ী থানার উপ-পরিদর্শক (দারোগা)পলাশ ও কনস্টবল শুকুমার ও বাংলাদেশি নাগরিক ওই এলাকার মৃত আব্দুর গফুর আলীর ছেলে আলী হোসেন (৪৭) ও নজরুল ইসলামের ছেলে সহিদুল ইসলাম (৩৮)ও মাদক সেবনকারী সুকু আহত হন ।

এদিকে এ খবর বিজিবির কাছে পৌঁছিলে গংগারহাট বিজিবি ক্যাম্পের সদস্যরা দ্রুত ঘটনাস্থলে ছুটে যায়।বিষয়টি বিএসএফকে অবগত করেন। বিএসএফর সদস্যরা ঘটনাস্থলে গিয়ে পুলিশের খোয়া যাওয়া মোবাইল ফোন ও চশমা উদ্ধার করে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার সময় বিজিবির কাছে হস্তান্তর করে। গংগারহাট বিজিবি ক্যাম্পের নায়েক সুবেদার আবু হানিফ আলী জানান, খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি শান্ত করে বিষয়টি বিএসএফকে অবগত করা হয়। পরে এক ঘন্টা পর পুলিশের হারিয়ে যাওয়া মোবাইল ফোন ও চশমা উদ্ধার করা হয়। উদ্ধারের বিষয়টি উদ্ধর্তন কর্মকর্তাকে অবগত করা হয়েছে। ফুলবাড়ী থানার অফিসার ইনর্চাজ (ওসি) ফজলুর রহমান জানান মামলা তদন্ত করার সময় বাংলাদেশি আর ভারতীয় নাগরিকদের সাথে ধস্তাধস্তি হওয়ার ঘটনা দেখে পুলিশ সেখানে উপস্থিত হয়। হারিয়ে যায় মোবাইল ফোন আর চশমা এখনো পাওয়া যায়নি। ।

About admin

Check Also

১৯১ অনলাইন নিউজ পোর্টাল বন্ধে চিঠি দেয়া হয়েছে : তথ্যমন্ত্রী

১৯১টি অনলাইন নিউজ পোর্টালের লিংক বন্ধে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগে চিঠি পাঠানো হয়েছে বলে জানিয়েছেন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *