Breaking News

রানীর শেষকৃত্যে গিয়ে আমি সবার মুখে আমি একথা শুনেছি: প্রধানমন্ত্রী

সংক্রমণের রেশ এখনো কাটেনি, আর এরই মধ্যে বিশ্বের প্রায় প্রতি দেশেই লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের দাম। শুধু তাই নয়, আগামীতে সারা-বিশ্বজুড়ে দুর্ভিক্ষ দেখা দিতে পারে বলে মনে করেছে অনেক দেশ। আর তাই আগেই থেকেই সবাইকে সতর্ক করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যে যা পারেন উৎপাদন করার আহ্বান জানিয়েছেন।শেখ হাসিনা বলেন, “রানী এলিজাবেথের শেষকৃত্যে গিয়ে আমি সবার মুখে শুনেছি, আগামী বছর দুর্ভিক্ষ হতে পারে। আর সেহেতু যে যা পারেন উৎপাদন করেন। এক ইঞ্চি জমিও যেন অনাবাদি থাকে না।

আমরা এ ব্যাপারে সহযোগিতার ব্যবস্থা করেছি।”বুধবার (১২ অক্টোবর) গণভবন থেকে কার্যত ১৪২৫ ও ১৪২৬ বঙ্গাব্দের বঙ্গবন্ধু কৃষি পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে তিনি এ কথা বলেন।কৃষিমন্ত্রী আবদুর রাজ্জাককে উদ্দেশ্য করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “কৃষিপণ্য বা খাদ্যপণ্য সংরক্ষণ করতে হবে। যে জিনিসটি সবচেয়ে বেশি উৎপাদিত হচ্ছে সেই অনুযায়ী সংরক্ষণাগার গড়ে তুলতে হবে। এ জন্য শিল্প এলাকায় সংরক্ষণাগার তৈরি করা যেতে পারে। এর জন্য আমি অর্থায়ন করবো।”এমনিতেই নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের দাম অনেক বেড়ে যাওয়ায় রীতিমতো নানা সমস্যার মুখোমুখি হতে হচ্ছে দেশের সাধারণ মানুষকে। সেহেতু আগামীতে দুভিক্ষের বিষয়টি নিয়ে সবাইকে ভাবা উচিত।

About admin

Check Also

হঠাৎ পররাষ্ট্রমন্ত্রীর দপ্তরে ৪ অনাবাসিক রাষ্ট্রদূত

বাংলাদেশে নবনিযুক্ত চার অনাবাসিক রাষ্ট্রদূত আজ রাজধানীর ফরেন সার্ভিস একাডেমিতে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. একে আব্দুল মোমেনের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *