‘১২ তারিখের সমাবেশ থেকে স্বৈরাচারী সরকারের পতন ঘণ্টা বেজে উঠবে’

বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মোহাম্মদ শাহজাহান বলেছেন, সামনের নির্বাচনকে কেন্দ্র করে নতুন করে মাস্টার প্ল্যান বাস্তবায়ন শুরু করেছে সরকার। ইতোমধ্যে দলের যেসব নেতাকর্মীর নামে হয়রানিমূলক মামলা দেওয়া হয়েছিল, সেগুলোতে গ্রেপ্তার করা শুরু করেছে। অবৈধ পথে ক্ষমতায় থাকা এবং ভোটারবিহীন নির্বাচন নির্বিঘ্নে অনুষ্ঠিত করতেই একের পর এক নেতাকর্মীদের গ্রেপ্তার করা হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, আগামী ১২ অক্টোবর চট্টগ্রাম বিভাগীয় সমাবেশ লক্ষ জনতার সমাবেশে পরিণত হবে। ১২ তারিখের সমাবেশ থেকে এই স্বৈরাচারী সরকারের পতন ঘণ্টা বেজে উঠবে

মঙ্গলবার ( ৪ অক্টোবর) বিকেলে চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপি আয়োজিত বিভাগীয় সমাবেশ-এর প্রস্তুতি সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মোহাম্মদ শাহজাহান বলেন, বর্তমান গণবিরোধী আওয়ামী সরকারের ব্যর্থতার কারণে চাল, ডাল, জ্বালানি তেলসহ নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্য অস্বাভাবিক হারে বৃদ্ধি পেয়েছে। এর প্রতিবাদে বিএনপির চলমান আন্দোলনে ভোলার নুরে আলম ও আব্দুর রহিম, নারায়ণগঞ্জে শাওন, মুন্সিগঞ্জে শহিদুল ইসলাম শাওন ও যশোরে আব্দুল আলিমসহ মোট ৫ জন নিহত হয়েছেন।

তিনি বলেন, এইসব হত্যার প্রতিবাদে এবং বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে আগামী ১২ অক্টোবর এখানে লক্ষ জনতার সমাবেশ ঘটবে।
প্রধান বক্তার বক্তব্যে বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মীর মোহাম্মদ নাসির উদ্দিন বলেন, বিএনপির বিভাগীয় সমাবেশ ঠেকাতে সরকার নানামুখী চক্রান্ত শুরু করেছে। কারণ সরকারের বিরুদ্ধে মানুষ জেগে উঠেছে। বিএনপির সভা সমাবেশে যোগ দিতে শুরু করেছে মানুষ। এতে আতঙ্কিত সরকার। আমরা স্পষ্ট করে বলে দিতে চাই, যতই চক্রান্তের জাল ফেলা হোক না কেন, এই অবৈধ সরকারের পতন ঠেকানো যাবে না। গ্রেপ্তার করে, মামলা দিয়ে, চক্রান্ত করে জনগণকে আর দাবিয়ে রাখা যাবে না।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির আহ্বায়ক ডা. শাহাদাত হোসেন। চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির সদস্য সচিব আবুল হাশেম বক্কর, চট্টগ্রাম বিভাগীয় সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক হারুনুর রশিদ হারুন, কেন্দ্রীয় বিএনপির সহ-গ্রাম বিষয়ক সম্পাদক মো. বেলাল আহমেদ প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

About admin

Check Also

সুখবর দিলেন মিথিলা

দুই বাংলার অভিনেত্রী রাফিয়াত রশিদ মিথিলা। সম্প্রতি এই অভিনেত্রী জানালেন— নতুন একটি ওয়েব সিরিজে যুক্ত …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *