আ.লীগ কবে ভাল ছিল প্রশ্ন -রিজভীর

ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগ কবে ভাল ছিল এমন প্রশ্ন রেখেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী।

তিনি বলেন,’অনেকেই বলে এই আওয়ামী লীগ আর সেই আওয়ামী লীগ নেই।আওয়ামী লীগ কবে ভালো ছিলো? ৭২-৭৫ সালে আমরা দেখেছি লাল বাহিনী, নীল বাহিনী,সবুজ বাহিনী,রক্ষী বাহিনীর কথাও আমরা জানি।এখন আমরা দেখছি নানা বাহিনী,ছাত্রলীগ বাহিনী, যুবলীগ বাহিনী।সাথে পুলিশ র্যাব তো আছেই।

সোমবার(৩ অক্টোবর) সকালে নয়া পল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে এক মানববন্ধনে এসব কথা বলেন তিনি। ইডেন কলেজে ছাত্রলীগের নজিরবিহীন কেলেংকারি ও সারাদেশে নারী নির্যাতনের প্রতিবাদে এই মানববন্ধন কর্মসূচির আয়োজন করে জাতীয়তাবাদী মহিলা দল।

রিজভী বলেন,’সারাদেশকে এক ভয়াবহ অন্ধকারে নিমজ্জিত করেছেন শেখ হাসিনা। এর পরিণাম যে কী ভয়াবহ হবে শেখ হাসিনা টের পাচ্ছেন না।গোটা দেশকে এক লুটপাটের অভয়ারণ্যে পরিণত করেছে শেখ হাসিনা।এই অনাচার চলতে দেয়া যায় না।জাতীয়তাবাদী শক্তির নেতৃত্বে মহিলা দলের নেতাকর্মীদেরকে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে।ছাত্রলীগ আজ সন্ত্রাসী সংগঠন এই অবৈধ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কারনে,ছাত্রলীগ আজকে নারী নির্যাতন কারী এই অবৈধ সরকারের কারনে।এদের আশ্রয়দাতা,প্রশ্রয়দাতা তিনি।

বিএনপির এই শীর্ষনেতা বলেন,আজকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ও ইডেন কলেজে যা হচ্ছে তা অবর্ণনীয় ও ন্যাক্কারজনক। আসলে সরকার ছাত্রলীগকে কি বানাচ্ছেন? তাদেরকে তো খুনি বানাচ্ছেন। এরআগে দর্জি বিশ্বজিতকে হত্যা করেছে। আজকে দেশে পড়ালেখা নেই। শেখ হাসিনা পড়ালেখা তুলে দিয়েছেন। প্রভুদের খুশি করতে টার্গেট করে তিনি এটা করেছেন। আজকে ছাত্রলীগের নামে ছাত্র আছে। কিন্তু পড়ালেখা তো নেই। শেখ হাসিনা কি বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানকে নারীদের দাস বাজারে পরিণত করছেন? ইডেনের ঘটনা তো তাই প্রমাণ করে।

রিজভী বলেন,’যারা রাষ্ট্রযন্ত্রকে অবৈধভাবে কব্জা করে দিনে ভোট করার যারা সাহস পাননা রাতে ভোট করতে হয় তারা তো আমাদের বিশ্ববিদ্যালয় গুলো শান্তিপূর্ণ ভাবে চলুক দেশের মানুষ উচ্চ শিক্ষিত হোক ওরা ইডেন কলেজ ছেড়ে দিয়েছে ছাত্রলীগ তুমি যা ইচ্ছে করো ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছেড়ে দিয়েছে ছাত্রলীগকে,তারা সেখানে হলগুলো নিয়ন্ত্রণ করে।জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের হাতে ছেড়ে দিয়েছে। সেখানে কোনো ভবন নির্মাণ কাজ হলে সেগুলো থেকে চাঁদা দাবি করে।

বিএনপির এই মুখপাত্র বলেন,’আমাদেরকে অনেকেই বলেন- বিএনপি ইডেনের বিষয়ে কি করছে? আমরা ইডেনে ছাত্রলীগের কুকর্মের প্রতিবাদ ও ধিক্কার জানাই।মা বাবা সুশৃঙ্খল ও ভদ্র হলে ছেলে-মেয়েও ভদ্র হয়। আজকে এতো এতো মা-বোনের ইজ্জতের বিনিময়ে অর্জিত আমাদের দেশের স্বাধীনতা আজ কোথায়? আওয়ামী লীগ বিরোধী দলে থাকলেই খালি গণতন্ত্রের কথা বলে। বাংলাদেশ থেকে কেউ বড় বিজ্ঞানী হোক, বিদেশে উচ্চশিক্ষা নিতে যাক,কেউ বড় অর্থনীতিবিদ হোক,পণ্ডিত হোক এটা তো শেখ হাসিনা চাননা। এইবার সাহিত্যে স্বাধীনতা পুরস্কার দেয়া হয়েছে একজন খুনিকে।

তিনি বলেন,’ইডেনে ছাত্রলীগের কুকীর্তি ন্যাক্কারজনক। আসলে ছাত্রলীগের উপরের দিকে যারা আছেন তারা ভালো না। ফলে ছাত্রলীগ তো নারীদের ওপর আক্রমণ করবেই। তারা শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ চাইবেনা। তারা ইডেন কলেজকে ছাত্রলীগের হাতে ছেড়ে দিয়েছে। জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের হাতে ছেড়ে দিয়েছে। সেখানে কোনো ভবন নির্মাণ কাজ হলে সেগুলো থেকে চাঁদা দাবি করে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের হাতে ছেড়ে দিয়েছে। তারা সেখানে হলগুলো নিয়ন্ত্রণ করে।
সংগঠনের সভাপতি আফরোজা আব্বাসের সভাপতিত্বে ও সিনিয়র যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হেলেন জেরিন খানের পরিচালনায় মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য সেলিমা রহমান সহ কেন্দ্রীয় ও ঢাকা মহানগর উত্তর-দক্ষিণ মহিলা দলের নেতাকর্মীরা।

About admin

Check Also

১৯১ অনলাইন নিউজ পোর্টাল বন্ধে চিঠি দেয়া হয়েছে : তথ্যমন্ত্রী

১৯১টি অনলাইন নিউজ পোর্টালের লিংক বন্ধে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগে চিঠি পাঠানো হয়েছে বলে জানিয়েছেন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *