কনক সারোয়ারসহ সাংবাদিকদের সঙ্গে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রীর বৈঠক

মতপ্রকাশের স্বাধীনতা ইস্যুতে সাংবাদিকদের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিনকেন গোলটেবিল বৈঠকে অংশ নিয়েছেন। বৈঠকে যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী বাংলাদেশি সাংবাদিক কনক সারোয়ারকেও দেখা গেছে। দেশটির স্টেট ডিপার্টমেন্ট (পররাষ্ট্র দপ্তর)-এর ফরেন প্রেস সেন্টারে ‘গ্লোবাল ফ্রিডম অফ এক্সপ্রেশন’ শীর্ষক গোলটেবিল বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে।

ফরেন প্রেস সেন্টার বিদেশি মিডিয়ার সঙ্গে সম্পৃক্ত হয়ে যুক্তরাষ্ট্রের নীতি, সমাজ, সংস্কৃতি এবং মূল্যবোধ সম্পর্কে বৈশ্বিক বোঝাপড়ার মাধ্যমে স্টেট ডিপার্টমেন্টের মিশনকে সহায়তা করে। ওয়াশিংটন ডিসি এবং নিউ ইয়র্কে স্টেট ডিপার্টমেন্টের ফরেন প্রেস সেন্টার রয়েছে।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী অ্যান্টনি ব্লিনকেন নিজের অফিসিয়াল টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে গোলটেবিল বৈঠকে উপস্থিত সাংবাদিকদের সঙ্গে নিজের ছবি পোস্ট করেছেন। টুইটে তিনি লিখেছেন, ‘যেখানে মতপ্রকাশের স্বাধীনতাকে সম্মান জানানো হয়, সেখানে সমাজ প্রস্ফুটিত হয়। আজ ফরেন প্রেস সেন্টারে সাংবাদিক এবং সুশীল সমাজের কাছ থেকে তাদের কথা শোনার সুযোগ পেয়ে খুব ভালো লাগছে। গণতন্ত্র ও মানবাধিকার প্রতিষ্ঠায় তাদের গুরুত্বপূর্ণ কর্মকাণ্ডের জন্য আমি তাদের ধন্যবাদ জানিয়েছি।

ফরেন প্রেস সেন্টার সূত্রে জানা গেছে, ২০২০ সালে অপহরণের শিকার মার্কিন নৌবাহিনীর সাবেক কর্মকর্তা মার্ক ফ্রেরিচের সম্প্রতি মুক্ত হয়ে দেশে ফেরাতে নিজের আনন্দ প্রকাশ করে বক্তব্য শুরু করেন ব্লিনকেন। যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র নেড প্রাইসও সেখানে উপস্থিত ছিলেন।

স্টেট ডিপার্টমেন্ট প্রকাশিত ভিডিওতে তাকে বলতে শোনা যায়, ‘আজ অসাধারণ সব সহকর্মীদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করে খুব ভালো লাগছে।’ মতপ্রকাশের স্বাধীনতা এবং মুক্ত গণমাধ্যমের প্রতি যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিশ্রুতির কথা স্মরণ করিয়ে দিয়ে তিনি বলেন, ‘বিশ্বজুড়েই এগুলো আজ সেন্সরশিপ, নজরদারি, কঠোর আইনকানুন, অপপ্রচার, আটক-নির্যাতন, সহিংসতাসহ নানা কারণে হুমকির সম্মুখীন। এখানে উপস্থিত আমাদের সকল সহকর্মী যারা বিভিন্ন উপায়ে বিশ্বজুড়ে (মতপ্রকাশের স্বাধীনতা এবং মুক্ত গণমাধ্যমের) নীতিগুলো বজায় রাখার জন্য অসাধারণ সাহস দেখিয়েছেন তাদের কাছ থেকে সেসব গল্প শুনতে আমার আর তর সইছে না। মতপ্রকাশের স্বাধীনতা এবং মুক্ত গণমাধ্যমকে সহায়তা করতে, রক্ষা করতে আমাদের অধিকতর করণীয় ঠিক করার জন্য আমি তাদের অভিজ্ঞতা এবং ভাবনাগুলো জানতে উদগ্রীব।’

ওদিকে, স্টেট ডিপার্টমেন্ট ওই গোলটেবিল বৈঠক নিয়ে একটি টুইট করেছে যেটি ফরেন প্রেস সেন্টার রিটুইট করেছে। সেক্রেটারি ব্লিনকেন ফরেন প্রেস সেন্টারে মতপ্রকাশের স্বাধীনতা বিষয়ক গোলটেবিল বৈঠকে ভাষণ দেন। তিনি আফগানিস্তান থেকে মার্ক ফ্রেরিচের মুক্তি নিয়ে বলেন, যেসব আমেরিকানদের নির্বিচারে এবং অন্যায়ভাবে আটক কিংবা জিম্মি করা হয়েছে তাদের স্বাধীনতা ফিরিয়ে দেয়াই সবচেয়ে বড় অগ্রাধিকার।

About admin

Check Also

সুখবর দিলেন মিথিলা

দুই বাংলার অভিনেত্রী রাফিয়াত রশিদ মিথিলা। সম্প্রতি এই অভিনেত্রী জানালেন— নতুন একটি ওয়েব সিরিজে যুক্ত …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *