Breaking News

আগামীতে তিনশত আসনে নির্বাচন করবে ইসলামী আন্দলন

পীর সাহেব চরমোনাই মুফতি মুহাম্মদ রেজউল করিম বলেন, কমিউনিজম, জাতীয়তাবাদ ও ধর্মনিরপেক্ততাবাদ দুনিয়ায় শান্তি দিতে পারেনি। গণতন্ত্রের প্রবক্তা আমেরিকা সারা বিশ্বে শন্তির নীড়ে আগুন জ্বালিয়েছে। সাম্যবাদের নামে মানুষকে ধোকা দেয়া হয়েছে।
ধর্মনিরপেক্তার নামে ভারত আজ কিনা করছে। মুসলমানদের ভিটে বাড়ি ছাড়া করছে। হাজার বছরের মুসলিম ঐতিহ্য মুছে দিচ্ে ভারত থেকে।তিনি বলেন কোন মুসলমান ইসলাম ছাড়া কোন তন্ত্র মন্ত্র নিয়ে সময় শ্রম দিতে পারেনা। এসলামই একমাত্র শান্তির গ্রান্টি।
অতীতে যারা দেশ শাসন করেছে এবং এখনো করছে তারা সবাই দেশের মানুষকে ধোকা দিয়েছে।

সরকারের লোকেরা জনগণের টাকা লুটপাট করে বেগম পাড়ায় প্রাসাদ গড়ছে। আর দেশের মানুষ না খেয়ে মরছে। পীর সাহেব বলেন, ইসলামী আন্দোলন এখন একটি বড় দল। আগামীতে তিনশত আসনে নির্বাচন করার শক্তি অর্জন করেছে।
ভারতের টিপাইমু বাঁধ নিয়ে ইসলামী আন্দোলনের কড়া প্রতিবাদের মুখে ভারত মাথা নোয়াতে বাধ্য হয়। তিনি প্রশ্ন করে বলেন, তখন কোথায় ছিল আওয়ামী লীগ? তিনি সবাইকে ইসলামী আন্দোলন বাংদেশের সাথে যুক্ত হওয়ার আহবান জানান।

পীর সাহেব চরমোনাই (১৬ সেপ্টেম্বর) শুক্রবার বিকেলে কক্সবাজার পাবলিক হল ময়দানে তাঁর দল ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ আয়োজিত এক জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে একথা বলেন।
সভায় সভাপতিত্ব করেন কক্সবাজার জেলা সভাপতি মাওলানা মোহাম্মদ আলী।

দলের যুগ্ম মহাসচিব গাজি আতাউর রহমান বলেন, দেশের ভবিষ্যৎ নিয়ে মানুষ শঙ্কিত। অগণতান্ত্রিকভাবে ক্ষমতা দখলকারী এই সরকার দেশ জাতিকে আজ বিপর্যয়ের পথে ঠেলে দিচ্ছে। দেশ শ্রীলঙ্কার পথে ধাবিত হচ্ছে।মন্ত্রী এমপিরা বেসামাল কথা বলে দেশের মানুষের সাথে তামাশা করছে। পররাষ্ট্র মন্ত্রী দেশের স্বাধিনতা বিরোধী বক্ত্য দিয়েও বহাল তবিয়তে। আজ দেশের স্বাধিনতা হুমকির মুখে।তিনি বলেন দেশই যদি না থাকে তা হলে দল আর রাজনীতি কোথায় করবেন। তাই পীর সাহেব চরমোনাই সব দলমতের সবাইকে নিয়ে জাতীয় সরকারের প্রস্তাব করেছেন।

তিনি বলেন,মানুষ এখন ঘরেও থাকতে পারছেনা। এই প্রতিহিংসার রাজনীতি দেশে কল্যাণ বয়ে আনবেনা। পীর সাহেব চরমেনাই এর ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ এই প্রতিহিংসার রাজনীতি করেনা। তিনি দেশের সব দেশেপ্রেমিক দল গুলোকে ঐক্যবদ্ধহওয়ার আহবান করছেন। আসুন আমরা ঐক্যবদ্ধ হয়ে আমাদের দেশটাকে রক্ষা করি।

দলের সহকারী প্রশিক্ষণ সম্পাদক
মুফতি দেলোয়ার হোসাইন
বলেন, অতীতে আওয়ামী লীগ, বিএনপি ও জাতীয় পার্টি দেশ শাসন করেছে। তারা বরাবরই ব্যর্থতার পরিচয় দিয়েছে। নেতার পরিবর্তন হয়েছে। নীতির কোন পরিবর্তন হয়নি। তিনি বলেন স্বাধীনতার ৫০ বছর পরেও মানুষের দুরদর্শার কোন পরিবর্তন হয়নি। তাতে প্রমানিত ইসলাম ছাড়া মানুষের ভাগ্যের পরিবর্তন হবেনা।

About admin

Check Also

প্রধানমন্ত্রীর মহানুভবতায় চাকরি পেলেন পা হারানো ছাত্রলীগ নেতা মাসুদ

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মহানুভবতায় রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে চাকরি পেয়েছেন ছাত্রশিবিরের নৃশংস হামলায় পা হারানো ছাত্রলীগ নেতা …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *