Breaking News

পুলিশ না থাকলে ১২ ঘণ্টাও আওয়ামী লীগ থাকতে পারবে না: মান্না

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ভারত সফরে পানিবণ্টন ছাড়া আর কোনো অর্জন নেই বলে মন্তব্য করেছেন নাগরিক ঐক্যের সভাপতি মাহমুদুর রহমান মান্না। শুক্রবার (৯ সেপ্টেম্বর) জাতীয় প্রেস ক্লাবে দলটিতে নতুন সদস্যদের যোগদান অনুষ্ঠানে তিনি এ মন্তব্য করেন।

মাহমুদুর রহমান মান্না বলেন, ভারত সফর থেকে কী পেয়েছেন? একটা স্মারকলিপি সই করেছেন সেগুলোর মধ্যে এক নদীর পানিবণ্টন ছাড়া তো আর কিছু নাই। তাও কত কিউসেক পানিবণ্টন করেছেন। হাজারের কোটাও যায়নি। কয় বিঘা জমি সেচ দেওয়া যাবে তার মাধ্যমে। ওই নদী তো আমদেরই। এর বাইরে যেসব চুক্তি করেছেন, তা একজন জয়েন সেক্রেটারি গেলেই পারতো।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্দেশে তিনি বলেন, গায়ের জোরে ক্ষমতায় থাকেন আর যাই করেন, আপনি তো আমাদের দেশের প্রধানমন্ত্রী। আমার দেশে আমি আপনাকে জবর দখলদারি বলি, কিন্তু বিদেশের মাটিতে আপনি অপমানিত হন তা আমরা চাই না।

মানুষ এখন এই সরকারের বিরুদ্ধে বিদ্রোহী করতে চায় মন্তব্য করে নাগরিক ঐক্যের সভাপতি বলেন, মানুষ আমাদের উস্কানি দেয়, জিজ্ঞেস করে এতদিন ধরে একটা সরকার আছে করেনটা কী? আমরা তো আমাদের কাজ করছি। কিন্তু এটা সত্য আমরা যা চাই, যখন চাই, যেরকম করে চাই তখনই সেরকম করে করতে পারি না।

তিনি বলেন, অনেকে বলে- পারছেন না তো আওয়ামী লীগের সঙ্গে। তারা তো আছেই। আওয়ামী লীগকে কি হারাতে পারবেন? আমি মনে করি আওয়ামী লীগ হেরে গেছে। যেই আওয়ামী লীগ দেশে স্বাধীনতা যুদ্ধের নেতৃত্ব দেওয়ার গৌরব অর্জন করেছিল, সেই আওয়ামী লীগ মানে এখন বাংলাদেশে পুলিশ লীগ। পুলিশ নাই, আওয়ামী লীগও নাই। পুলিশ না থাকলে ১২ ঘণ্টাও আওয়ামী লীগ থাকতে পারবে না।
এই সরকারের ক্ষমতায় থাকার অধিকার নেই মন্তব্য করে মান্না বলেন, আপনি বলছেন বাসায় আসেন, চা খাওয়াবো। আবার বাসার আসার আগেই পথে লাঠি দিয়ে পেটাতে থাকবেন। এরকম ৪২০ করার দরকার কি? দ্রব্যমূল্য কমাতে পারছেন না, জীবনের নিরাপত্তা দিতে পারেন না, গুম-খুন বন্ধ করতে পারেন না। সারা পৃথিবীর সামনে মাথা হেট করে ফেলেছেন। আপনার তো ক্ষমতায় থাকার অধিকার নাই।

About admin

Check Also

১৯১ অনলাইন নিউজ পোর্টাল বন্ধে চিঠি দেয়া হয়েছে : তথ্যমন্ত্রী

১৯১টি অনলাইন নিউজ পোর্টালের লিংক বন্ধে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগে চিঠি পাঠানো হয়েছে বলে জানিয়েছেন …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *